বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ০৬:০৬ পূর্বাহ্ন
নোটিশ::
দৈনিক স্বদেশ সংবাদ লাইভ খবর পড়ুন

ডাঃ দীপক কুমার নাগের বিচার দাবীতে বিক্ষুব্দ ময়মনসিংহবাসীর তিন কিলোমিটার দীর্ঘ মানববন্ধন

রিপোর্টার / ৬৮ ভিউ
আপডেট সময় : বুধবার, ১৯ অক্টোবর, ২০২২, ৩:৫৫ অপরাহ্ন

স্টাফ রিপোর্টার : ভুল ও অপচিকিৎসার কারণে বাংলাদেশের ব্যবসায়ী সংগঠনের সর্ব্বোচ্য সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সহ-সভাপতি ও ময়মনসিংহ চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি সিআইপি আমিনুল হক শামীমের মেয়ে ডাঃ মাহজাবীন হক মাশার চোখের ৩৩ ভাগ রেটিনা চিরতরে নষ্ট হওয়ায় চিকিৎসক দীপক কুমার নাগের বিচারের দাবিতে ময়মনসিংহে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার (১৯ অক্টোবর) দুপুরে নগরীর টাউন হল মোড় থেকে বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ের সামনে হয়ে ব্রীজ মোড় পর্যন্ত সবচেয়ে দীর্ঘ তিন কিলোমিটার ব্যাপী বিশাল মানববন্ধন সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিক্ষুব্দ ময়মনসিংহবাসী। মানববন্ধনে, রাজনীতিক, শিক্ষক, সাংস্কৃতিককর্মী, নারী উদ্যোক্তা, ময়মনসিংহ জিলা মটর মালিক সমিতি ও শ্রমিক ইউনিয়ন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র ও বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষযুক্ত হন।
হুমায়ুন কবির হিমেলের সঞ্চলনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, আবু সাইদ দীন ইসলাম ফখরুল, অধ্যাপক জালাল উদ্দিন, মাহবুবুল আলম, তাছলিমা বেগম, আনোয়ারুল হক রিপন, শংকর সাহা, নারী উগ্যোক্তা সৈয়দা সেলিনা আজাদ, আইনুন নাহার, আহমদ শফিক, মাসুদ রানা প্রমুখ।
বুধবার দুপুর ১২টা থেকে ০১টা পর্যন্ত ঘন্টাব্যাপী মানবন্ধন চলাকালে বক্তারা বলেন, একজন উদীয়মান ও সম্ভাবনাময় তরুণ নারী চিকিৎসক রোগীকে মনগড়া অপচিকিৎসা দিয়ে চোখের ৩৩ শতাংশ দৃষ্টিহীন ও চোখের মারাত্মক ক্ষতির ন্যায়বিচার না হলে দেশের আরো বহু লোক তার ধারা আরো ক্ষতির সন্মুখীন হতে পারেন। অপচিকিৎক ডা. দীপক কুমার নাগ দেশের ভালো চিকিৎসকগণের মান-মর্যাদাকে বিনষ্ট করেছেন। চিকিৎসক সমাজের কলঙ্ক ডাঃ দীপক নাগের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করার মাধ্যমে চিকিৎসক সমাজের সুনাম অক্ষুণœ রাখার পথ প্রশস্ত করার জন্য আইন ও বিচার সংশ্লিষ্টদের প্রতি জোর দাবী জানান।
বক্তাগণ আরো বলেন, গত জুন মাসে মাহজাবীন হক মাশার চোখের সমস্যা হওয়ায় দীন মোঃ চক্ষু হাসপাতাল অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারে চক্ষু বিশেষজ্ঞ প্রফেসর ডাঃ দীপক নাগের চিকিৎসা নেন। এ সময় তিনি মাশার চোখে লেজার প্রতিস্থাপন করেন। কিন্তু লেজার লাগানোর পর চোখে অন্ধকার দেখা শুরু করে মাশা। এই অবস্থায় মাশাকে জাতীয় চক্ষু বিজ্ঞান ইনস্টিটিউট হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা জানান লেজার স্থাপনের কারণে মাশার চোখের ৩৩ ভাগ রেটিনা চিরতরে নষ্ট হয়ে গেছে। পরে তিনি উন্নত চিকিৎসার জন্য থাইল্যান্ডের বামরুংগ্রাদ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানেও বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ভুল চিকিৎসার কারণে মাশার চোখের রেটিনার ৩৩ ভাগ নষ্ট হয়ে গেছে। আমরা এই ঘটনার উপযুক্ত বিচার দাবি করছি। একইসঙ্গে ভবিষ্যতে যেন এ ধরনের কোনো ঘটনা কারো সঙ্গেই আর না ঘটে, একজন সচেতন মানুষ হিসেবে এটাই আমার প্রত্যাশা।
এর আগে গত ১০ আগস্ট ময়মনসিংহের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ঢাকার সোবানবাগ এলাকার দীন মোঃ চক্ষু হাসপাতাল অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারের চক্ষু বিশেষজ্ঞ প্রফেসর ডাঃ দীপক নাগকে আসামি করে মামলা করা হয়। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে কোতোয়ালি মডেল থানাকে এফআইআরভুক্ত করার আদেশ দিয়েছেন। এছাড়া চিকিৎসক দীপক কুমার নাগের বিচার দাবিতে ময়মনসিংহ প্রেসক্লাবে সংবাদ সন্মেলন করা হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com